1. admin@jamunarbarta.com : যমুনার বার্তা : যমুনার বার্তা
  2. shohel.jugantor@gmail.com : যমুনার বার্তা : যমুনার বার্তা
শনিবার, ২২ জানুয়ারী ২০২২, ০২:৪৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
পরিবর্তনের অঙ্গীকার নিয়ে জালালাবাদ এসোসিয়েশনের নির্বাচনে সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী হচ্ছেন সাইকুল ইসলাম আসন্ন জালালাবাদ এসোসিয়েশনে সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী দুরুদ মিয়া রনেল এবং মইনুল ইসলাম বাণিজ্যমন্ত্রী-ইরাকের রাষ্ট্রদূত বৈঠক : বাংলাদেশে বিনিয়োগ আরো বাড়াতে আগ্রহী ইরাক প্রয়োজনে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধন করা হবে: আইনমন্ত্রী ব্যাংকারদের সর্বনিম্ন বেতন ২৮ হাজার, মার্চ থেকে কার্যকর সৌদিতে হুথি জঙ্গিদের ড্রোন হামলার তীব্র নিন্দা বাংলাদেশের জিও লোকেশন সিস্টেম পাচ্ছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মলনুপিরাভির প্রস্তুত করবে বেক্সিমকো ২০২০-২১ সালে বিপিএম-পিপিএম পদক পাচ্ছেন ২৩০ পুলিশ সদস্য রপ্তানি বাণিজ্যে অবদানের জন্য সিআইপি কার্ড

হটলাইনে চার মিনিটেই পর্চা-মৌজা ম্যাপের আবেদন

  • প্রকাশ রবিবার, ৯ জানুয়ারি, ২০২২
  • ১৭ জন পঠিত

ঘরে বসেই যে কোনো ফোন থেকে ভূমি মন্ত্রণালয়ের হটলাইন ১৬১২২ নম্বরে কল করে জমির মালিক নিজেই পর্চার (খতিয়ান) জন্য আবেদন করতে পারবেন। ফোনের অপর প্রান্ত থেকে অপারেটর আবেদনের কাজ করে দেবেন। চার মিনিটেই খতিয়ান কিংবা মৌজা ম্যাপের আবেদন করা যাবে। একইভাবে পর্চা, মৌজা ম্যাপের নির্ধারিত ফিও পরিশোধ করা যাবে। ভূমি উন্নয়ন করও পরিশোধ করা যাবে এই পদ্ধতিতে।

আবেদনের পর আবেদনকারী তার মোবাইলে একটি টোকেন পাবেন। টোকেন নম্বরটি দিয়ে মোবাইলের মাধ্যমে ফি প্রদান করলে মোবাইলে আবেদনের আইডি ও ডেলিভারির তারিখ পাওয়া যাবে। এরপর সংশ্নিষ্ট এলাকার ডাক বিভাগের প্রতিনিধি আবেদনকারীর বাড়ির ঠিকানায় পর্চা অথবা মৌজা ম্যাপ পৌঁছে দেবেন।

এছাড়া ভূমি মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন এলাকার ভার্চুয়াল রেকর্ড রুম থেকে যে কোনো সময় যে কোনো নাগরিক পর্চা দেখতে পারবেন। সেখান থেকে সার্টিফায়েড কপি সংগ্রহ করতে কোর্ট ফি বাবদ ৫০ টাকা পরিশোধ করতে হবে। ডাকযোগে নিজ ঠিকানায় পেতে অতিরিক্ত ৪০ টাকা দিতে হবে।

হটলাইনে আবেদন যেভাবে

ডিজিটাল ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিস- নগদ, রকেট, বিকাশ, উপায় ও যে কোনো ডেবিট কিংবা ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে ফি দেওয়া যাবে।

ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ করার জন্য ১৬১২২ নম্বরে কল করে অথবা land.gov.bd ওয়েবসাইটে এনআইডিসহ জমির তথ্য প্রদান করে নিবন্ধন করতে হবে। নিবন্ধনের তথ্য পাওয়ার পর ইউনিয়ন ভূমি অফিস অনুমোদন দিলে হোল্ডিং এন্ট্রি শেষ হবে। হোল্ডিং নম্বরের তথ্য আবেদনকারীকে এসএমএসে পাঠানো হবে। এরপর নাগরিককে ফের ১৬১২২ নম্বরে কল করে হোল্ডিংয়ের তথ্য প্রদান করতে হবে।

পরে কল সেন্টার থেকে নাগরিকের মোবাইলে টোকেন নম্বরের এসএমএস আসবে। মোবাইল ব্যাংকিংয়ের পে-বিলের মাধ্যমে টোকেন নম্বর দিয়ে ৭২ ঘণ্টার মধ্যে ভূমি মালিক তার জমিসংক্রান্ত ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ করতে পারবেন। এই কর পরিশোধের ৭২ ঘণ্টার মধ্যে ডিজিটাল দাখিলা নাগরিকের অ্যাকাউন্টে সংরক্ষিত হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো বার্তা দেখুন
©২০১৫ ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।
Theme Customized By BreakingNews